বাঙলাদেশে ছাত্র-শিক্ষকের সম্পর্ক চোর-পুলিশের মতো


বাঙলাদেশে পরীক্ষাকেন্দ্রে ছাত্র–শিক্ষক এর সম্পর্কটা হলো চোর আর পুলিশের সম্পর্ক। ছাত্ররা চোর, শিক্ষকেরা পুলিশ। ছাত্ররা ধান্দায় থাকে কখন শিক্ষক নামের পুলিশ একটু চোখের আড়াল হবে আর ছাত্র চুরি করে নকল করতে পারবে। আর শিক্ষক থাকে পাহারায়, যেন ছাত্র নামক চোর কিছুতেই চুরি করতে না পারে। এটা হলো বাঙলাদেশের সাধারন অবস্থা। কিন্তু এর মধ্যে একটা হাড্ডিখিজির আছে, সেটা হলো ছাত্রলীগ। শিক্ষক অবশ্য এখন ভয়ে থাকে, না জানি কোথায় কোন লীগের হয়ে মেরে দেয়। তাই তারা আগেভাগে খোঁজ নিয়ে রাখে পরীক্ষাকেন্দ্রে কোনো লীগার আছে কী না। লীগার ব্যতীত অন্যদের সাথে শুরু হয় চোর পুলিশ খেলা। এখানে সাধারনত পরীক্ষার্থী সিভিলিয়ানদের কোনো সম্মানবোধ নাই, তারা ব্যাসিকালি চোর হিসেবে গড়ে উঠেছে, এই শিক্ষাব্যবস্থা তাদের চুরি করতে শিখিয়েছে।

এইসব দেখে দেখে আমার মনে হচ্ছে শিক্ষকের পরিবর্তে পরীক্ষাকেন্দ্রের ডিউটিতে আর্মি–পুলিশ–ব়্যাব দায়িত্বে থাকলেই মনে হয় ভাল হতো। পুলিশের দায়িত্ব আর শিক্ষককে পালন করার দরকার নাই। ধরেন ব়্যাব বন্দুক হাতে ডিউটি করবে। কেউ নকল করতে ধরলে ডাইরেক্ট ফায়ার। পরদিন পত্রিকায় খবর, নকল করার সময় ক্রসফায়ারে এক ছাত্র নিহত…


0 comments: